শনিবার, ১৬ জানুয়ারী ২০২১, ০৫:৪৪ অপরাহ্ন
Title :
রাণীনগরে সুবিধা বঞ্চিতদের মাঝে আরপিএ’র শীতবস্ত্র বিতরন বাগমারা তাহেরপুর পৌর নির্বাচনে নৌকা নিয়ে এলাকায় ফিরলেন মেয়র কালাম রাণীনগরে পৃথক অভিযানে গ্রেফতার ৪ গাঁজা উদ্ধার কবিতা: অভিযোগ বাগমারা ১৩ নং গোয়ালকান্দী ইউপি ৩ নং ওয়ার্ডে ছাত্রলীগের ৭৩ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিন রাণীনগরে শীতার্তদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ রাণীনগরে ছাত্রলীগের ৭৩ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন রাণীনগরের মেঘনা অধ্যয় কেন্দ্রের শিক্ষার্থীদের মাঝে বই ও স্বাস্থ্য উপকরণ বিতরণ তরুন যুব সংঘ এর পূর্নাঙ্গ কমিটি গঠিত। সভাপতি- তৌহিদ সানি, সাধারন সম্পাদক – আকিব বাগমারা তাহেরপুরে ট্রাক চাপায় নিহত এক আহত এক




পঞ্চগড়ে মাদ্রাসা থেকে জেডিসি পরীক্ষা দিচ্ছে হিন্দু শিক্ষার্থী

Reporter Name
  • Update Time : মঙ্গলবার, ১২ নভেম্বর, ২০১৯
  • ১ Time View
হিন্দু পরিবারের সন্তান হয়েও ইসলাম ধর্মকে জানার অদম্য ইচ্ছা শক্তি আর প্রবল আগ্রহে বছরের শুরুর দিকে স্থানীয় একটি মাদ্রাসার অষ্টম শ্রেণিতে ভর্তি হয় নয়ন নামের এক হিন্দু ধর্মালম্বী শিক্ষার্থী। নিয়ম অনুযায়ী রেজিষ্ট্রেশন ও ফরম পূরণ করে অংশ নেয় চলমান জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষায়। কুরআন মাজিদ, আরবীসহ হয়ে যাওয়া সব পরীক্ষা ভালোই হয়েছে বলেও জানায় সে। এই বিরল ঘটনাটি ঘটেছে পঞ্চগড়ের দেবীগঞ্জ উপজেলায়। নয়ন উপজেলার টেপ্রিগঞ্জ ইউনিয়নের প্রামাণিক পাড়া এলাকার রতন রায়ের ছেলে। সে স্থানীয় শেখ বাধা রেজিয়া দাখিল মাদ্রাসা থেকে এবার জেডিসি পরীক্ষা দিচ্ছে। হিন্দু ঘরের ছেলে হয়ে মুসলিম প্রতিষ্ঠানে পড়ছে কেন? এমন অভিযোগও নেই পরিবারের। তার বাবা রতন রায় জানান, আমার ছেলে মাদ্রাসায় ভর্তি হওয়ায় আমরা পরিবার থেকে কোন প্রতিকূলতা দেখাইনি। ওই মাদ্রাসার সুপার মাওঃ সাইফুল ইসলাম জানান, প্রাথমিক অবস্থায় আমি জানতামনা যে, নয়ন হিন্দু সম্প্রদায়ের। কারণ, তার মাদ্রাসায় দেয়া তথ্যে নিজের নামসহ বাবা-মায়ের নামের সামনে পিছনে কোন ধর্মীয় পরিচয় ছিলনা। পরীক্ষার রেজিষ্ট্রেশনের জন্য সে টুপি পাঞ্জাবি পড়া ছবি দিয়েছিলো। তাছাড়া নয়ন, রতন এরকম নাম মুসলিমদেরও আছে। এবিষয়ে নয়নের সাথে কথা বললে সে জানায়, আমি আমার পরিচয় গোপন রাখতে চেয়েছিলাম। কারণ, আমি সনাতন ধর্মের এটা জানার পর যদি শিক্ষকরা আমাকে মাদ্রাসায় ভর্তি না করান। ইসলাম ধর্মকে জানার এত আগ্রহ কেন? এমন প্রশ্নের জবাবে নয়ন জানায়, আমি সপ্তম শ্রেণি পর্যন্ত স্কুলে পড়েছি। সপ্তম শ্রেণিতে পড়ার সময় মাদ্রাসার সহপাঠীদের সাথে প্রাইভেট পড়তাম। তখন তাদের চালচলন, পড়ালেখা এবং ধর্মীয় বিষয় গুলো দেখে ইসলাম ধর্মের প্রতি আগ্রহ বেড়ে যায়। তখন তাদের সাথে পরামর্শ করে মাদ্রাসায় ভর্তি হই। আর আমি মাদ্রাসা থেকেই উচ্চ শিক্ষা অর্জন করতে চাই। মাদ্রাসায় পড়লেতো আরবী জানা আবশ্যক এমন প্রশ্নের উত্তরে সে জানায় আমি আলাদা ভাবে প্রাইভেট পড়ে আরবী বিষয় মোটামুটি আয়ত্ব করেছি। এবিষয়ে দেবীগঞ্জ উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ সলিমুল্লাহ বলেন, এরকম কোন তথ্য আমি পাইনি। তাই এখন কিছু বলতে পারছিনা।




More News Of This Category




side bottom




© All rights reserved © 2020 Atozithost
Design & Developed by: ATOZ IT HOST
Tuhin