• শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:৪৭ পূর্বাহ্ন
Headline
সমাজ উন্নয়নে অংশীদারীত্ব হয়ে কাজ করে যাচ্ছেন সাবেক ছাত্রনেতা ফয়সাল এখনই উঠছে না লকডাউন। বাড়ছে বিধিনিষেধ। সিদ্ধান্ত আন্তঃমন্ত্রণালয়ের। শ্রীপুরে রাস্তা পার হতে গিয়ে কাভার্ড ভ্যান চাপায় স্বামী-স্ত্রী নিহত কঠোর লকডাউন কতোটা ফলপ্রসূ? সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণ। করোনায় স্বাস্থ্যবিধি মানতে নড়াইলে মাশরাফির ব্যতিক্রমী পদক্ষেপ কি কি থাকছে সাত দিনের কঠোর লকডাউনে? লাগামহীন করোনার ভয়াবহতা! সোমবার থেকে কঠোর লকডাউন, মাঠে থাকবে সেনাবাহিনী। দেশের শীর্ষ পর্যটনকেন্দ্রের তালিকায় অপার সম্ভাবনার নাম সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলা নতুন সাতটি প্রতিষ্ঠানের সাথে চুক্তি স্বাক্ষর সম্পূর্ণ করলো শ্রেষ্ঠ ডট কম রাণীনগরে প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে একই পরিবারের তিন জনকে অপহরণ নাটোক!




শ্রীপুরে রাতের অন্ধকারে জমির সীমানা পিলার ভাঙচুর

Reporter Name / ১৬০ Time View
Update : সোমবার, ৩০ ডিসেম্বর, ২০১৯




গাজীপুরের শ্রীপুর পৌর এলাকার বেড়াইদেরচালা গ্রামের (এসকিউ সোয়েটার) সংলগ্ন এক পরিবার নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে। চাঁদা না দেওয়ায় ওই পরিবারের জমি জবর দখল করার চেষ্টা করছে নিত্যদিন।

জানা যায় দীর্ঘদিন যাবৎ ওই এলাকার ফরিদ মিয়ার স্ত্রী রুকিয়া আক্তার ২২শতাংশ জমি ক্রয় করে ভোগ দখলে শান্তিপূর্ণভাবে বসবাস করছেন। উক্ত জমির তফসিল- ৭নং কেওয়া মৌজার (৭৬৯ নং এস.এ) ও (৯৪৩ নং আর.এস) সাবেক (এস.এ ৯৪০) ও (আর.এস ৬২০৭) যাহার চৌহদ্দি উত্তরে রৌশনআরা গং, দক্ষিনে এমারত হোসেন গং, পূর্বে রফিকুল ইসলাম গং ও পশ্চিমে মনোয়ারা গং।

কিন্তু হঠাৎ ওই এলাকার মৃত মনসুর আলীর ছেলে শহীদুল্লাহ (৫০) অন্যায় ভাবে লাভবান হওয়ার উদ্দেশ্যে ওই জমিতে স্থাপনা নির্মাণে বাধা দেয়। গত বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে শহীদুল্লাহর নেতৃত্বে ১০থেকে ১৫জন অজ্ঞাতনামা সন্ত্রাসীদেরকে দিয়ে ওই জমিতে থাকা সীমানা পিলার ভাঙচুর করে ও জমিতে থাকা ফলজ গাছপালা কেটে ফেলে।

এ ঘটনায় গতকাল শুক্রবার (২৭ ডিসেম্বর) শ্রীপুর থানায় শহীদুল্লাহকে অভিযুক্ত করে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে ভুক্তভোগী রুকিয়া আক্তার।

রুকিয়া আক্তার বলেন, গত (২৫ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় আমার বাড়িতে শহীদুল্লাহসহ অজ্ঞাত নামা তিন-চারজন এসে আমার কাছে পাঁচ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে। উক্ত টাকা দিতে আমি অস্বীকার করলে তারা আমাকে মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে চলে যায়। এরই ধারাবাহিকতায় আমার জমিতে থাকা ফলজ গাছ ও সীমানা পিলার ভাঙচুর করে প্রায় ২০ হাজার টাকার ক্ষতি করেছে। সংশ্লিষ্ট প্রশাসন ও ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার কাছে সুষ্ঠু তদন্ত করে বিচার করার দাবি জানাচ্ছি।

অভিযুক্ত শহীদুল্লাহ বলেন, আমি কোন চাঁদা চাইনি কিংবা তার জমির সীমানা পিলার ভাঙচুর করিনি। প্রকৃতপক্ষে তার সাথে আমার জমি নিয়ে বিরোধ চলছে।

শ্রীপুর থানার অফিসার ইনচার্জ লিয়াকত আলী জানান, এ বিষয়ে লিখিত অভিযোগ পেয়েছি, তদন্ত করে প্রকৃত দোষীদের আইনের আওতায় আনা হবে।





আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category




side bottom